শোনো হে সমবেত প্রিয় মানুষ, আমি শহীদ বলছি।
আমি প্রাণ দিয়েছি হে, এই প্রিয় দেশ চেতনার জন্য;
অবনত মস্তকে অর্ধমুদিত হওয়া কুঁজো দেখতে নয়।
তোমাদের এক মিনিট হেঁট হওয়া নীরবতার বদলে,
আমায় বরং ক্ষনিক স্বাধীনতার বিজয়োল্লাস দাও।
তোমাদের চোখে জ্বলুক অহঙ্কারের মহা ঔজ্জ্বল্য।
এবং দেশলাই কাঠির মত মুখে থাক সুকান্ত বারুদ।

প্রবাহের ওহে সমবেত হেঁট, অশরীরী বলে যাচ্ছেতাই কোরনা।
অবজ্ঞার বদলে যুদ্ধশিশু আর তাদের নির্যাতিত মা’কে ভালোবাসো,
ঘোলাটে চোখ নিয়ে অন্নাভাবে শীর্ণ, বস্ত্রাভাবে আজও উলঙ্গ তারা,
বন্ধুগণ, এক মিনিট নীরবতার অথর্ব হেঁট নয়; বরং অর্থবোধক হও।

আঁতাতকারী যারা, যথারীতি আজো তারা দেয় চাকচিক্যের ধোঁকা।
ওরা বহুরূপী; যুদ্ধাপরাধী ওরা, দুগ্ধাপরাধী এবং অবশ্যই অপরাধী।
কুঁজোগন, এক মিনিটের এই স্থবিরতার বিভ্রান্তি ছেড়ে শুদ্ধ হও হে,
বরং তুমি নিজেই অর্থবোধক হও হে প্রিয় মানুষ; আমি শহীদ বলছি।

[97 বার পঠিত]