পাকিস্তানের পিটিআই নেতা ইমরান খান বলেছেন “আবদুল কাদের মোল্লা ছিলেন নিষ্পাপ এবং তার বিরুদ্ধে যত অভিযোগ আনা হয়েছে সব মিথ্যা।” শের আকবর খান কতৃক সোমবার পাকিস্তান জাতীয় পরিষদে এক প্রস্তব আনা হয় যেখানে কাদের মোল্লার ফাঁসিতে উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়। পরিষদ মনে করে ১৯৭১ সালে পাকিস্তানের প্রতি অনুগত থাকার জন্যই কাদের মোল্লাকে ফাসি দেওয়া হয়েছে।পরিষদ আরও বলে বাংলাদেশের উচিত হবে পুরানো ক্ষত পুনরুজ্জীবিত না করে বাকী সকল জামাত নেতাকে মুক্তি দেওয়া। পরে অধিকাংশ সদস্যের সম্মতিতে এই প্রস্তব পাশ হয়।হতাশা জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে পাকিস্তানের কোন এক মিনিষ্টারও। আর পাকিস্তান জামাত তাদের সেনাবাহীনির কাছে আবদার করেছে,যেন তারা বাংলাদেশকে আক্রমণ করে।

বোঝাই যাচ্ছে কাদের মোল্লার ফাঁসির খবরে পাকিস্তান শোকাহত।এই শোকে কাতর হয়ে বহু পাকিস্তানি কলামিস্ট উর্দুতে কলাম লিখছেন কাদের মোল্লাকে পাকিস্তানি শহীদ বলে।অখণ্ড পাকিস্তানের লোভাতুর স্বপ্ন এখনও যে পাকিদের মনের গহিনে উঁকি দেয়,এসব কথাবার্তায় তারই ইংগিত পাওয়া যায়।এ সমস্ত বকবকানিকে আমি কঠিন শোকের বিহঃপ্রকাশ হিসেবেই দেখছি।

এই সেই পাকিস্তান যেখানে প্রতিদিন নিয়ম করে বোমা মেরে মানুষ হত্যা করা হয়।বোমা হামলার প্রধান টার্গেট থাকে মাসজিদ অথবা তরি-তরকারির বাজার।রাস্তঘাটে আলখাল্লা আর বোরকা পরে চলাফেরা করা আপাত ধার্মিক এই মানুষ গুলোর অন্য এক পরিচয় পাওয়া যাবে ইউটিইবে পাকিস্তানি প্রাইভেট মুজরা লিখে সার্চ দিলেই।এই পাকিস্তানেরই এক বাড়িতে চার জন বিবি নিয়ে জেহাদ করতেন বিন লাদেন।এই সেই দেশ যেখানে প্রতিদিন ভিনদেশী(মার্কিন) বাহিনী দ্রোন হামলা করে বুঝিয়ে দেয় তোদের(পাকি) অত্মসম্মান বলে কিছু নেই।সম্পূর্ণ আত্ম উপলব্ধিহীন এক জাতি পাকিস্তান।১৯৭১ সালের ঘটনা থেকে কোররকম শিক্ষা না নেয়া এর প্রমাণ।
যা হোক পাকিস্তানকে এরকম শোকে জর্জরিত হতে দেখা অভূতপূর্ব।

[32 বার পঠিত]