হয়ত ফরিদ আহমেদ ক্ষমা করবে না আমাকে। তবু লিখছি। ফরিদের মা মারা গেছে কাল। বিদেশ বিভূঁইয়ে পড়ে রয়েছে ফরিদ আর সেই মায়ের কন্যাসম স্নেহধন্য ফরিদপত্নী আন্না। ওরা মুক্তমনের মানুষ। দোয়া করেন বলবার মত মানুষও নয় ওরা। এখন কি? কষ্টটা সঁপে দেবে কোন কল্পপ্রভুর চরনতলে? হালকা হয়ে ঘুমুতে যাবে? তা ও তো হবার নয়। এ যেন নীলকন্ঠ হয়ে যাওয়া। এদিক সেদিক বলে বেড়াবে। তেমন কিছুও ঘটবে না। প্রবল ব্যাক্তিক্তসম্পন্ন মানুষ ওরা। কি করবে ওরা? কি করা উচিৎ? একান্ত এই কষ্ট কি করে সামাল দেয় মুক্তমনারা?

এই ব্লগে যারা লেখেন তাদের মাত্র দু চার জনকে চিনি। চিনি বললে ভুল হবে; বলা যায় জানি। মাত্র দুজনকে বলতে পেলাম এই খবরটা। একজন শোকবার্তা পাঠিয়েছেন, আর এক জন নিখোঁজ। ভাবলাম, মুক্তমনার এই সাইটে ফরিদকে কেউ হয়তো একটু উষ্ণতা দেবে, জমাট কষ্টটা একটু হয়ত হালকা হবে। সেজন্যই এই নোট।

সবাই ভালো থাকুন।

[65 বার পঠিত]