একাকী

নীলের গর্জন যখন দুর্বোধ্য গম্ভীর হয়ে যায়,
উপলব্ধিতে সূর্যটা অপার্থিব আলতো মত আলো ছড়ায়,
কালচেবেগুনি রঙ সিঁধুর মিশেলে পোঁচ কাটে ইচ্ছেমত,
একসাথে বালুবেলা ছাড়ে বেজায় শব্দে সব গাঙচিলগুলো,
নোনাশ্যাওলা গন্ধের ঝিরঝিরে আবেশে চোখ বুজে আসে,
জলকণারা বাতাসকে ভারী ক’রে ফের আমাকে জড়ায়,
একা হতে পারি তখন; সৈকতটাও আমার হয়।

একটা সময় ছিলো; একা হবার আনুষ্ঠানিকতা করতাম,
আসলে একা হতামনা; কিসব ঘিরে রাখতো আশপাশ,
ভাবতাম ওটাই আমার তৈরী সেই আপনবিলাসী জগৎ,
শঙ্কর মোজার্ট কিংবা আরো কোনো উচ্চমার্গীয় সঙ্গীত,
আবছা নরম ঘরোয়া আলো, ঘুরন্ত বিজলী বাতাস;
ঘিরে থাকতো আরো কত কত আয়েশী আয়োজন,
যদিও; তুলনার এই সৈকতটার দেখা পাইনি তখনো।

সময় একটু বাড়লেই, সৈকতটা আমায় অধিকার করবে;
আমিও, অন্য অনেক রাতের মত, ওতে মিশবো,
অনন্তের অচেনা গন্ধ ভাসবে, শব্দগুলো সঙ্গীত হবে,
আলো আধারীর খেলাটাও বেশ জমে উঠবে ওখানটায়;
আমি একা হবো, বারেবার হারাবো; শূন্য হবো,
নবায়নের সেই খেলাটা নতুন করে আবার খেলবো,
অনন্তবিন্দুর সৈকতখানা বিদায়ে বলবে, ভুলো না আমায়।

About the Author:

মুক্তমনা ব্লগার। আদ্দি ঢাকায় বেড়ে ওঠা। পরবাস স্বার্থপরতায় অপরাধী তাই শেকড়ের কাছাকাছি থাকার প্রাণান্ত চেষ্টা।

মন্তব্যসমূহ

  1. কাজি মামুন জুন 20, 2012 at 10:09 অপরাহ্ন - Reply

    একটা সময় ছিলো; একা হবার আনুষ্ঠানিকতা করতাম,
    আসলে একা হতামনা; কিসব ঘিরে রাখতো আশপাশ,

    তাৎপর্যময়!
    বরাবরের মত ভাল লেগেছে!

  2. হুতম পেঁচা জুন 20, 2012 at 9:27 অপরাহ্ন - Reply

    ভাল লাগলো।

  3. গীতা দাস জুন 19, 2012 at 9:35 অপরাহ্ন - Reply

    ভয়ে আছি কে কখন ঝাঁকানি মারে

    কবিদের আবার ভয় আছে নাকি!এমন কবিতা পড়ে পাঠক ই যে ঝাঁকানি খাচ্ছে।
    আমি আজ খাগড়াছড়িতে অফিসের কাজে। আর এ কবিতাট আমার একাকিত্বে ভাল সান্নিধ্য দিল।
    কবির একাকিত্ব থেকে আরও অনেক কবিতা সৃষ্টি হয়ে আমাদের একাকিত্ব ঘুচাক।

  4. অভ্র ব্যানার্জী জুন 19, 2012 at 11:47 পূর্বাহ্ন - Reply

    অসাধারন।

    সময় একটু বাড়লেই, সৈকতটা আমায় অধিকার করবে;
    আমিও, অন্য অনেক রাতের মত, ওতে মিশবো,
    অনন্তের অচেনা গন্ধ ভাসবে, শব্দগুলো সঙ্গীত হবে,
    আলো আধারীর খেলাটাও বেশ জমে উঠবে ওখানটায়;
    আমি একা হবো, বারেবার হারাবো; শূন্য হবো,
    নবায়নের সেই খেলাটা নতুন করে আবার খেলবো,
    অনন্তবিন্দুর সৈকতখানা বিদায়ে বলবে, ভুলো না আমায়।

    একেই বোধয় বলে কাব্যের খেলা। (Y) (Y)

    • কাজী রহমান জুন 19, 2012 at 1:37 অপরাহ্ন - Reply

      @অভ্র ব্যানার্জী,

      :))

      নিয়ম কানুন তেমন কিছুই যে মানছি না। ভয়ে আছি কে কখন ঝাঁকানি মারে। ইতিমধ্যে আনন্দে আছি, আপনাদের পাঠপ্রতিক্রিয়া দেখে দেখে। খুব ভালো থাকুন (D)

  5. সংশপ্তক জুন 19, 2012 at 10:25 পূর্বাহ্ন - Reply

    নীলের গর্জন যখন দুর্বোধ্য গম্ভীর হয়ে যায়,
    উপলব্ধিতে সূর্যটা অপার্থিব আলতো মত আলো ছড়ায়,

    দিগন্তে সমূদ্র এবং আকাশ মিশে যেতে দেখা যায়। বাস্তবে আকাশ এবং সমূ্দ্র কখনও একত্রিত হয় না। কেউ কেউ জীবনভর দিগন্ত শিকারের পর জীবন সায়াহ্নের কোন এক সময় বুঝতে পারে এ বাস্তবতা। কেউ কেউ কখনই পারে না বুঝতে যে দিগন্ত একটা ভ্রম। তবে, এসব দেখে নীল সমূদ্র আর নীলাকাশ নিভৃতে, ‘একাকী’ মুচকী হাসে। একাকীত্ব একটা ধ্রুব বাস্তবতা আর সান্নিধ্য ‘সম্ভবত’ আপেক্ষিকতা।

    • কাজী রহমান জুন 19, 2012 at 1:28 অপরাহ্ন - Reply

      @সংশপ্তক,

      বাস্তবে আকাশ এবং সমূ্দ্র কখনও একত্রিত হয় না

      তবুও মানুষ
      অগাস্তে রুদিনের ভাবুক ভাস্কর্য হয়ে ভাবতে বসে,
      সাগর আকাশ
      একাকার করে কোথাও আশ্রয় খোঁজে; খামোখাই হয়ত;
      বাইরে ছুঁড়ে
      হিসেবের খাতা, ভালোবাসে বিভ্রম; একা, আপন মনে।

      একাকীত্ব একটা ধ্রুব বাস্তবতা আর সান্নিধ্য ‘সম্ভবত’ আপেক্ষিকতা

      একটা বেচারা ধরনের একাকী কবিতা
      যেটা জন্মাবার সময় ভাবনার অধিকার পায়নি
      যুক্তবাদী বিশ্লেষণী মানুষেরা ওকে কেটেচিরে কর্কশ করলো
      অথচ কবিতাকে কবি বলতেই পেলোনা, ক্ষমতার অপপ্রয়োগের কথা।

  6. অরণ্য জুন 18, 2012 at 11:53 অপরাহ্ন - Reply

    …তবুওতো আমার আছে প্রকৃতি, আছে সুন্দর, আছে কবিতা। এই কি যথেষ্ট নয়?? তবে যথেষ্ট কী?

    • কাজী রহমান জুন 19, 2012 at 12:49 অপরাহ্ন - Reply

      @অরণ্য,

      আছে প্রকৃতি, আছে সুন্দর, আছে কবিতা

      যথেষ্ট বটে 🙂

  7. কলিম শরাফী জুন 18, 2012 at 2:33 অপরাহ্ন - Reply

    ভাল লেগেছে।

    • কাজী রহমান জুন 19, 2012 at 12:48 অপরাহ্ন - Reply

      @কলিম শরাফী,

      আপনার সহজ মন্তব্যটিও আমার ভালো লেগেছে (C)

  8. সুষুপ্ত পাঠক জুন 18, 2012 at 1:54 অপরাহ্ন - Reply

    ভাবালুতা!

    • কাজী রহমান জুন 19, 2012 at 12:47 অপরাহ্ন - Reply

      @সুষুপ্ত পাঠক,

      ভবিষ্যৎ শব্দপ্রয়োগ মনতালিকায় ‘ভাবালুতা’ জুড়ে নিলাম।

মন্তব্য করুন