(বড়দের কল্যানে ছোটবেলা ছেলেধরার ভয়ে ভীত ছিলাম কিছুদিন। অনেক বছর পেরিয়ে ছেলেধরার বদলে দেখা পেলাম অল্প কয়েকটা আলোধরার। কল্যানে মুক্তমনে যারা আলো ধরে আর আমদের দিয়ে যায় এক একটি আলোর ইট; তাদেরকে ভালবেসে আর পথভোলাদের বাতিঘরের জন্য …………বাতিঘর)

আলো জ্বেলে হাইপেশিয়া জ্বলে;
পাদ্রী মোল্লার স্বার্থপর গনিতে।

জাতিভাগে কাটে দাগ মৌ-লোভী
অবিরাম মারে নিরীহ মানুষ।

চেতনাতে তৃপ্ত মগজধোপা বাপমা
স্বর্গবীমা কিনে বেচে বিশ্বাসে।

পাল্টে চলে সভ্যতার সংজ্ঞা;
অসভ্য সভ্যতা অসভ্য রেখে।

তবু বাঁচে কয়েকটা আলোধরা;
একাগ্র কৌতূহল দিয়ে উপহার।

আমাদের শক্তি তুমি আমি
চলো বাতিঘর বুনি যতনে।

[26 বার পঠিত]