আমি যখন বহুদিনের হিমসাগর থেকে উঠে এসে

একটি দু’টি করে মখমল নরম পাপড়ি মেলছি,

তুমি তখন সটান ঘুরে দাঁড়ালে

আমি যখন প্রজাপতির জাফরি কাটা পাখনা থেকে ম্রিয়মান বেগুনি আর কষ্ট হলুদ

ধুয়েমুছে সাতরঙ সুখ আঁকছি ,

ঠিক তখনি তুমি দু’চ্ছাই বলে দূরে সরে গেলে

আর এতো দ্রুত এই চলে যাওয়া যে অকস্মাৎ নিমেষে ধূলোমলিন হয়ে ক্ষয়ে গেলে

আমি তোমার চলে যাওয়া দেখছি আর মনে মনে বলছি

ভাবছো কী, এই যে গোলাপ পাপড়ি মেলা , প্রজাপতির পাখায় রঙ্গীন আঁকিবুঁকি ,

এই সব তোমারই কারণে?

বড্ড দেরী করে হলেও আজ বলি -এতো সব রঙ তুলির আয়োজন, এতো কলরব

একান্ত আমার নিজের জন্যেই তৈরী করা

তোমার কাঙ্গাল বিপন্ন উপস্থিতি তাতে থাকতেও পারে ,

তবে জন্মান্তরের মত হারালেও ক্ষতি নেই

আমি যে আমাতে মেতেছি।

[194 বার পঠিত]