আমায় যে ঝড় বাদলে আচ্ছন্ন
যমুনায় ঝাঁপ দিতে বল
বিনিময়ে কি দেবে বল-
অদ্বিতীয় কাঠুরে আমার, বলো দেখি
ইস্পাতের আঁচড় ছাড়া
আর কি কি দিতে পারো তুমি
সীমানার বাইরে গিয়ে, পরিচিত পৃথিবীর বাইরে গিয়ে
জন্ম থেকে বয়ে চলা কাঠকয়লার বাইরে গিয়ে…
ভেবে চিন্তে বল দেখি
কি আছে তোমার, দেবে বলে যাকে তুমি
আর কারো মালিকানায় সমর্পণ করনি?

আমি তো তোমার মত
অস্ত্রশস্ত্র চিনিনা তেমন কিছু
তোমার মতন আমি আপন সিন্দুক খুলে
তদারকি জানিনা তেমন
তারপরও যাবো আমি, যমুনাকে এনে দেব
তোমার খাঁচায়,
জেনেছি অনেক পরে উন্মত্তা নদী
বড় দরকারী তোমার
তখনো কোপাই জুড়ে
পাথরের উড়ু উড়ু জল নিয়ে খেলা
জোয়ারে টিলারা নড়ে, আমি শুধু
সে নদীই ধরে রাখি
স্রোতের ভূমিকা পাতায়
নদীর শরীর দেখে তাদের এখন আর আলাদা লাগে না
বলেই বসেছো, তবে, ঝাঁপ দিয়ে দেখি
নিয়ে নাও সুখী সুখী জীবন রসদ;
যমুনা কিংবা আমি-
একজন তো ফিরবেই!

[512 বার পঠিত]