নষ্টের সভ্যতা

নষ্টের সভ্যতা


ঘাস ফড়িংয়ের মতন লাফিয়ে চলি আমি
আজকাল গতি বড্ড কমে গেছে
সম্ভাবনা কচ্ছপের বেগে ধাববান
ইতিহাস বলে, জয় আমার সুনিশ্চিৎ!
কিন্তু এই শহরের অলিগলি জানে,
ভূমিকম্পের মতন স্বভাব আমার;
সবকিছু এলোমেলো করে কেটে পড়ি চুপিসারে
-সবার অলক্ষ্যে!

কেউ কি ভূমিকম্পের ঠিকানা দিতে পারো?
আমি পত্র লিখতাম বন্ধুত্বের।
ঠিকানাহীন আমি সংসার ভাঙ্গনের
স্বপ্ন গাঁথি নারীর রেশমী চুলে,
আপিমের চাষ করি তার উর্বর জমিতে
-বড় বেশি বেরশিক!

তুমি বাঁচবে বহুদিন- একবার এক
জ্যোতিষি হাত দেখে বলেছিল।
আমি হিমালয়ের ওপর থেকে লাফ
দিয়েছিলাম সেইদিনই
-নীচে নামতে যে আমার ভালোলাগে!
ঈশ্বরের হাত এসে আমাকে লুফে নিল
-আমি মরে গেলাম!


আমার হাতে চিমটি কেটে দেখ
রক্তের কোন গন্ধ নেই এখানে।
ভালোবাসার নেশা পান করিয়ে দাও, দেখবে
লেফট্-রাই্ট করতে করতে দিব্যি বের
হয়ে আসছি নারীর গভীর থেকে।
মাইরি বলছি, আমি মরে গেছি কবে!
কমলা সুন্দরীর বিছনায় গিয়ে প্রেমে
পড়েছি তার বার বছরের মেয়ের!
কমলার চুপসে যাওয়া স্তনে মানচিত্র
এঁকেছি বালিকার ফুটন্ত দেহের।
এ-সবই ইতিহাস হয়েছে আজ।

আজ কেবলি আষ্ফালন করি আমার
শুকিয়ে যাওয়া বৌয়ের গায়ে পা উঠিয়ে-
মাগি তুই এত তাড়াতাড়িই বুড়িয়ে গেলি!
আর, যুবতী বেশ্যার কাপড় খোলার তাড়া
দেখে জীহ্বার রস খসিয়ে বলি, হাঁপানিটা
আজ হঠাতই বেড়ে গেছে, হাঁপাতে হাঁপাতে কেটে পড়ি…!
আমি পুরুষ, আমি মানুষ, আমি আবার আসি
এ সভ্যতা আমার পৈতৃক সম্পত্তি; নারী আমার
অবসর, আমার বাগানের বৃক্ষ
আমি পুরুষ, আমি মানুষ
আমার জন্যই নারীর চাষ!

জন্ম সন : ১৯৮৬ জন্মস্থান : মেহেরপুর, বাংলাদেশ। মাতা ও পিতা : মোছাঃ মনোয়ারা বেগম, মোঃ আওলাদ হোসেন। পড়াশুনা : প্রাথমিক, শালিকা সর মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং শালিকা মাদ্রাসা। মাধ্যমিক, শালিকা মাধ্য বিদ্যালয় এবং মেহেরপুর জেলা স্কুল। কলেজ, কুষ্টিয়া পুলিশ লাইন। স্নাতক, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (ইংরেজি অনার্স, ফাইনাল ইয়ার)। লেখালেখি : গল্প, কবিতা ও নাটক। বই : নৈঃশব্দ ও একটি রাতের গল্প (প্রকাশিতব্য)। সম্পাদক : শাশ্বতিকী। প্রিয় লেখক : শেক্সপিয়ার, হেমিংওয়ে, আলবেয়ার কামু, তলস্তয়, মানিক, তারাশঙ্কর প্রিয় কবি : রবীন্দ্রনাথ, জীবননান্দ দাশ, গ্যেটে, রবার্ট ফ্রস্ট, আয়াপ্পা পানিকর, মাহবুব দারবিশ, এলিয়ট... প্রিয় বই : ডেথ অব ইভান ঈলিচ, মেটামরফোসিস, আউটসাইডার, দি হার্ট অব ডার্কনেস, ম্যাকবেথ, ডলস হাউস, অউডিপাস, ফাউস্ট, লা মিজারেবল, গ্যালিভার ট্রাভেলস, ড. হাইড ও জেকিল, মাদার কারেজ, টেস, এ্যনিমাল ফার্ম, মাদার, মা, লাল সালু, পদ্মা নদীর মাঝি, কবি, পুতুল নাচের ইতিকথা, চিলে কোঠার সেপাই, ভলগা থেকে গঙ্গা, আরন্যক, শেষের কবিতা, আরো অনেক। অবসর : কবিতা পড়া ও সিনেমা দেখা। যোগাযোগ : 01717513023, [email protected]

মন্তব্যসমূহ

  1. সাইফুল ইসলাম জুন 1, 2010 at 11:40 অপরাহ্ন - Reply

    যদি আপনার কবিতাটাকে একটা পাজলের সাথে তুলনা করি তাহলে বলতে হবে আপনার পাজলের প্রত্যেকটি টুকরো অসাধারন সৌন্দর্যমন্ডিত কিন্তু কেমন যেন একটু এলোমেলো লাগছে(নিতান্তই আমার ব্যক্তিগত মতামত)। আমি হলাম বাংলাদেশের ক্রিকেট দলের খেলা দেখে জীবনেও ক্রিকেট না খেলা দর্শকের মত যে কিনা শুধু ভালো লেগেছে নাকি মন্দ লেগেছে তাই চিৎকার করে বলে যায়। কিন্তু কোন সাজেশন দিতে পারে না। 😀

  2. আফরোজা আলম মে 29, 2010 at 5:41 অপরাহ্ন - Reply

    বানান ভুল আছে অনেক।ঠিক করে নিন। আরো কবিতা পড়ুন তাহলে মনে হয় একটা ধারণা জন্মাবে কবিতা সম্পর্কে। আপনার মাঝে আছে অনেক সম্ভাবনা। কিছু মনে করলেন নাতো? একান্তই আমার মত জানালাম।

    • মোজাফফর হোসেন মে 30, 2010 at 11:29 অপরাহ্ন - Reply

      @আফরোজা আলম, not at all, rather thanks a lot, keep in touch and give me more suggesion…anyway, one thing more, ami kobita likhi moner anonde, ami already jane gachi amar kobitar hat konodini valo hobe na, jor kore tow r kobi hoa jai na! tai goddo lakhar try kore jacchi, na hole atao chare dabo, i want to be a perfect reader after all, thanks again

      to download our literature magazine, plz visit this site

      http://shashwatiki.mywibes.com/

  3. আফরোজা আলম মে 29, 2010 at 5:30 অপরাহ্ন - Reply

    ভালো লাগলো। আরো লিখুন।

মন্তব্য করুন